August 17, 2017

নিরপেক্ষভাবে দায়িত্ব পালন করবো: নতুন সিইসি

g4রাজনীতির জটিল সময়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের দায়িত্ব পেয়ে সাংবিধানিক এই দায়িত্ব নিরপেক্ষভাবে পালনের অঙ্গীকার করেছেন দেশের পরবর্তী প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা।

সোমবার রাত ১১টার দিকে এ প্রতিক্রিয়া জানান পরবর্তী প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদা। সাবেক এই সচিব বলেন, শপথ নেওয়ার পর অন্য কমিশনারদের সঙ্গে পরামর্শ করে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিক্রিয়া জানানো হবে।

কে এম নুরুল হুদা তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, এটা অনেক বড় দায়িত্ব ও ভালো দায়িত্ব। রাজনৈতিক দল, নাগরিক সমাজ, গণমাধ্যমসহ সবার সহযোগিতা চাই।

পাঁচ সদস্যের ইসিকে নিয়ে ঐকমত‌্যের ভিত্তিতে কাজ করবেন বলে জানান ৬৯ বছর বয়সী মুক্তিযোদ্ধা নূরুল হুদা।

এক যুগ আগে চাকরি থেকে অবসরে যাওয়া নূরুল হুদা পটুয়াখালীর বাউফলের বাসিন্দা। স্বাধীনতা যুদ্ধে ৯ নম্বর সেক্টরে যুদ্ধে অংশ নিয়ে পটুয়াখালী জেলা পাক হানাদার মুক্ত করতে ভূমিকা ছিল তার।

১৯৪৮ সালে জন্ম নেওয়া নূরুল হুদা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পরিসংখ্যান বিভাগে সম্মান ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নেন। দ্বিতীয় বর্ষে পড়ার সময়ই বরিশাল অঞ্চলে মেজর জলিলের নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েন নূরুল হুদা। পরে জাসদের সঙ্গেও সম্পৃক্ততা ছিল তার। ১৯৭৩ সালে সরকারি কর্মকর্তা হিসেবে কাজ শুরুর পর কুমিল্লা ও ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক ছিলেন নূরুল হুদা।

বিদায়ী কমিশনকে নিয়ে প্রশ্ন তুলে আসা বিএনপি নতুন নির্বাচন কমিশনকে নিয়ে তাৎক্ষণিক কোনো প্রতিক্রিয়া দেয়নি। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ আগেই বলে আসছিল, তারা রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্ত মেনে নেবে।

নবগঠিত এই ইসির অধীনেই আগামী সংসদ নির্বাচন হবে। গত সংসদ নির্বাচনে সব দল না আসায় তাদের ভূমিকার উপর চোখ থাকবে সবার।

কে এম নুরুল হুদার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করবেন অন্য চার নির্বাচন কমিশনার সাবেক সচিব মো. রফিকুল ইসলাম, সাবেক অতিরিক্ত সচিব মাহবুব তালুকদার, সাবেক জেলা ও দায়রা জজ বেগম কবিতা খানম, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাৎ হোসেন চৌধুরী।

সোমবার রাতে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ পরবর্তী সিইসি ও কমিশনারদের নিয়োগ অনুমোদন করেন। রাত সাড়ে ১০টায় এ-সংক্রান্ত গেজেট প্রকাশ করা হয়।

Related posts